সবাই মিলে যা’কাতের টাকায় এক হিন্দু না’রীর বি’য়ে দিলেন মুসলিম ব্যবসায়ী

আমরা একটা অ’সহায় হিন্দু মেয়ের বিয়েতে সহায়তা করেছি। এক্ষেত্রে তার ধ’র্মীয় পরিচয় মুখ্য নয়। মুখ্য হলো আমাদের সদিচ্ছা। জাকা’তের টা’কায় হিন্দু ধ’র্মাবলম্বী এক নারীর বিয়ের খরচের সিং’হভাগ বহন করেছেন মাগুরার এক ব্যবসায়ী। ধুমধাম করেই বিয়ে হয়েছে পূর্ণিমা রাণীর।

আ’লোকসজ্জা, স্টেজ, ব্যান্ডপার্টি সবই হয়েছে পূর্ণিমার বিয়েতে। রবিবার (১৯ মে) রাতে জাঁ’কজমকপূর্ণ অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়েই তার বিয়ের
আ’নুষ্ঠানিকতা স’ম্পন্ন হয়। পরদিন সোমবার পূর্ণিমা চলে যান তার স্বামীর বাড়ি। পূর্ণিমা কর্মকারের বিয়েতে জাকাতের জন্য নির্ধারিত অর্থ ব্যয় করে অসাম্প্রদায়িকতার উৎকৃষ্ট উদাহরণ রেখেছেন শহরের

পারনান্দুয়ালী এ”লাকার নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক ব্যবসায়ী।এছাড়া, বিয়ের অনুষ্ঠানে সাধ্যমতো সহায়তা করেছেন স্থানীয় সংসদ সদস্য সা’ইফুজ্জামান শিখর, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান পংকজ ‘কু’ণ্ডু,

পৌর মেয়র খুরশিদ হায়দার টু’টুলসহ স্থা’নীয় অনেকেই।এ বিয়ের অনুষ্ঠানের অন্যতম আয়োজক অধ্যাপিকা পলি সাহা জানান, ৪ বছর আগে ক্যা’ন্সারে ভুগে মারা যান পূর্ণিমার বাবা ‘ক্ষি’তিষ ক’র্মকার।মা

কিনু কর্মকার অন্যের বাড়িতে কাজ করে সংসার চালান। এই অভাবের মধ্যেও পড়াশোনা থেমে থাকেনি পূর্ণিমার। তিনি জানান, সম্প্রতি চুয়া’ডাঙ্গার স’রোজগঞ্জ এলাকার ব্যবসায়ী বিমল দাস পূর্ণিমাকে বিয়ে করার আগ্রহ প্রকাশ করলে আমি এবং আমার স্বামী তরুণ ভৌ’মিকসহ

কবিরাজ: তপন দেব । এখানে আয়ুর্বেদী ঔষধের মাধ্যমে- আমাদের এখানে নারী ও পুরুষের সকল #যৌন_রোগ সহ জটিল ও কঠিন রোগের সু চিকিৎসা করা হয়।
বিঃ দ্রঃ আমাদের এখান থেকে দেশে ও বিদেশে কুরিয়ার করে ঔষধ পাঠানো হয়। আপনার চিকিৎসার জন্য আজই যোগাযোগ করুন – ০১৮২১৮৭০১৭০

স্থানীয় কয়েকজনকে সঙ্গে নিয়ে পূর্ণিমার বিয়ের আয়োজন শুরু করি।বিষয়টি জানতে পেরে এলাকার বিভিন্ন স্তরের মানুষ সা’ধ্যমতো সহ’যোগিতা করেন। পলি সাহা বলেন, পূর্ণিমার বিয়েতে নিজের জাকাতের টাকা

থেকে একজন সহায়তা করেছেন। যা দেশের ধ’র্মীয় সম্পৃতির অনন্য উদা’হরণ।মাগুরা পৌরসভার কা’উন্সিলর মো. সাকিব হাসান তুহিন বলেন, আম’রা সবাই মিলে একটা অ’সহায় মেয়ের বিয়েতে সহায়তা করেছি। এক্ষেত্রে তার ধ’র্মীয় পরিচ’য় মুখ্য নয়। মুখ্য হলো আমাদের সদিচ্ছা। আমরা পূর্ণিমার সুখী দা’ম্পত্য জীবন কামনা করি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *